২০১৬:সেরা ৫স্মার্টফোন!

২০১৬ শেষ হতে আর একদিন বাকি। বছরজুড়ে বের হয়েছে নানা ব্র্যান্ডের শত শত স্মার্টফোন। কোনগুলো পেয়েছে জনপ্রিয়তা?  আর পারফরম্যান্সের বিচারে কোনগুলোই বা সেরা?  চলুন জেনে নেয়া যাক ২০১৬ র সেরা ৫ স্মার্টফোনের কথা!

অ্যাপল আইফোন ৭ প্লাস


গত বছরের মতো এবারও দুটি সংস্করণে নতুন আইফোন প্রকাশ করে অ্যাপল। নকশা সেই একই। তবে পারফরম্যান্সের বিচারেই আইফোন ৭ প্লাসের অনন্য অবস্থান। ধুলা ও পানিরোধী এই আইফোনে যোগ করা হয়েছে ডুয়েল ক্যামেরা। অ্যাপল দাবি করলেও ঠিক পেশাদার ক্যামেরার মানের ছবি এতে পাওয়া যায় না বটে, তবে স্মার্টফোনের ক্যামেরার বিচারে ভালো তো বলতেই হয়।

প্রকাশ: সেপ্টেম্বর
স্টোরেজ: ৩২/১২৮/২৫৬ গিগাবাইট
ডিসপ্লে: সাড়ে ৫ ইঞ্চি
মূল ক্যামেরা: ১২ মেগাপিক্সেল
RAM: ৩ গিগাবাইট
ব্যাটারি: ২৯০০ মিলিঅ্যাম্পিয়ার

স্যামসাং গ্যালাক্সি এস৭ এজ


বাজারে স্যামসাং গ্যালাক্সি নোট ৭ থাকলে হয়তো সেরা ফোন হিসেবে সেটিই বেছে নেওয়া হতো। তবে ব্যাটারি থেকে আগুন ধরার ঘটনায় বেশ বিপাকে পড়ে প্রতিষ্ঠানটি। নোট ৭ না থাকলেও ২০১৬ সালে প্রকাশিত গ্যালাক্সি এস৭ এজ বর্তমান স্মার্টফোনগুলোর অন্যতম। কাচ ও ধাতব নকশার এস ৭ এজ পারফরম্যান্সের বিচারের চমৎকার। সঙ্গে বাঁকানো পর্দার জন্য সহজেই অন্য ফোন থেকে এটিকে আলাদা করা যায়।

প্রকাশ: মার্চ
স্টোরেজ: ৩২/৬৪ গিগাবাইট
ডিসপ্লে: সাড়ে ৫ ইঞ্চি
মূল ক্যামেরা: ১২ মেগাপিক্সেল
RAM: ৪ গিগাবাইট
ব্যাটারি: ৩৬০০ মিলিঅ্যাম্পিয়ার

গুগল পিক্সেল

পিক্সেল সিরিজ চালুর মাধ্যমে স্মার্টফোন নির্মাতা হিসেবে পরিচিত পেয়েছে গুগল। আইফোন ৭ প্রকাশের এক মাস পরই গুগল প্রকাশ করে পিক্সেল ও পিক্সেল এক্সএল। ক্যামেরার বিচারে অনেকের মতে সেরা স্মার্টফোন গুগল পিক্সেল। গুগলের সেবাগুলোর সেরা সুবিধা পেতে পিক্সেল ফোনের জুড়ি নেই। বর্তমানে ব্যক্তিগত সহকারী গুগল অ্যাসিস্ট্যান্ট পাওয়া যাচ্ছে শুধু পিক্সেল স্মার্টফোনেই। তাই সেরা অ্যান্ড্রয়েড স্মার্টফোন বললে অত্যুক্তি করা হয় না।

প্রকাশ: অক্টোবর
স্টোরেজ: ৩২/১২৮ গিগাবাইট
ডিসপ্লে: ৫ ইঞ্চি
মূল ক্যামেরা: ১২ মেগাপিক্সেল
RAM: ৪ গিগাবাইট
ব্যাটারি: ২৭৭০ মিলিঅ্যাম্পিয়ার

শিয়াওমি মি মিক্স

শীর্ষ মুঠোফোন নির্মাতারা নকশায় বড় ধরনের কোনো পরিবর্তন না আনতে পারলেও চীনা প্রতিষ্ঠান শিয়াওমি কিন্তু ঠিকই চমক দেখিয়েছে। মি মিক্স মডেলের ফোনের বিশেষত্ব হলো সামনের দিকের প্রায় পুরো অংশজুড়েই পর্দা। সঙ্গে এর ৬ গিগাবাইট র্যামের উল্লেখ না করলেই নয়। ফ্রন্ট ক্যামেরা ফোনের ওপরে যোগ না করে করা হয়েছে নিচে।

প্রকাশ: নভেম্বর
স্টোরেজ: ১২৮ গিগাবাইট
ডিসপ্লে: ৬.৪ ইঞ্চি
মূল ক্যামেরা: ১৬ মেগাপিক্সেল
RAM: ৬ গিগাবাইট
ব্যাটারি: ৪৪০০ মিলিঅ্যাম্পিয়ার

ওয়ানপ্লাস ৩

প্রথাগত বিপণনের ধারণার সঙ্গে ওয়ানপ্লাসের বেশ বড় পার্থক্য। বিজ্ঞাপনে খুব একটা না গেলেও অল্প সময়েই সাড়া ফেলেছে ব্র্যান্ডটি। এই বছরে ওয়ানপ্লাস থ্রি ও দিন কয়েক আগে থ্রিটি মডেলের স্মার্টফোন প্রকাশ করে ওয়ানপ্লাস। এই ফোনের বিশেষত্ব সুবিধায় না, বরং দামে। উচ্চমানের সব সুবিধা দেওয়ার পরও দাম একই মানের সেরা ব্র্যান্ডগুলোর তুলনায় বেশ কম।

প্রকাশ:  জুন
স্টোরেজ:  ৬৪ গিগাবাইট
ডিসপ্লে:  সাড়ে ৫ ইঞ্চি
মূল ক্যামেরা:  ১৬ মেগাপিক্সেল
RAM:  ৬ গিগাবাইট
ব্যাটারি:  ৩০০০ মিলিঅ্যাম্পিয়ার

One thought on “২০১৬:সেরা ৫স্মার্টফোন!

Leave a Reply

Fill in your details below or click an icon to log in:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out / Change )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out / Change )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out / Change )

Google+ photo

You are commenting using your Google+ account. Log Out / Change )

Connecting to %s